প্রতিনিধি, উজিরপুরঃ বরিশালের উজিরপুরে চাচার
বিরুদ্ধে চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। ভুক্তভোগী ছাত্রী ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার বামরাইল ইউনিয়নের খোলনা গ্রামের এসকান্দার আলি সরদারের ছেলে বখাটে রবিন সরদার(২৩) গত রবিবার বেলা ১১ টায় চতুর্থ শেণির ছাত্রীকে পানি খাওয়ার কথা বলে ঘরে ঢুকে বিভিন্ন প্রলোভন ও ভয়ভীতি দেখিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে এবং বিষয়টি কাউকে জানালে প্রানে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে লম্পট চাচা সটকে পরে। গতকাল সোমবার সকাল ১০ টায় পুনরায় ওই ছাত্রীকে ঘরে একা পেয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করতে গেলে ওই ছাত্রীর ডাকচিংকারে বাড়ীর লোকজন এগিয়ে আসলে ধর্ষক রবিন পালিয়ে যায়। এ নিয়ে ধর্ষকের পরিবার ও ছাত্রীর পরিবারের মধ্যে তুমুল ঝগড়ার সৃষ্টি হলে বিষয়টি এলাকায় ছড়িয়ে পরে। এ ব্যাপারে ছাত্রীর মা জানান, আমার নাবালিকা মেয়েকে ওই লম্পট রবিন জোর পূর্বক ধর্ষণ করেছে। আমি ওর বিচার চাই। ধর্ষক পলাতক রয়েছে। এরপূর্বে রবিনের বিরুদ্ধে একাধিক নারী কেলেঙ্কারীসহ এলাকায় বিভিন্ন কূ-কর্মের সাথে জড়িয়ে থাকার অভিযোগ পাওয়াগেছে। উজিরপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ আলী আর্শাদ জানান, বিষয়টি শুনে তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে পুলিশের ফোর্স পাঠানো হয়েছে। অভিযোগ পেলে অভিযুক্ত’র বিরুদ্ধে মামলা নেয়া হবে। অভিযুক্তকে গ্রেফতার পূর্বক আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।