কিশোরগঞ্জের নিকলী হাওরে গোসল করতে নেমে আকাশ (২৬) নামে এক পর্যটকের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় হাওরের পানিতে তলিয়ে যাওয়া তুহিন (২৫) ও হাসিব (২৬) নামে দুই পর্যটককে জীবিত উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিস ও স্থানীয় এলাকাবাসী। তবে দুজনের অবস্থা সংকটাপন্ন বলে জানা গেছে।

শুক্রবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে নিকলী উপজেলার কুর্শা এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।

পানিতে ডুবে মারা যাওয়া আকাশ ঢাকার বাড্ডা এলাকার বাসিন্দা জানা গেছে। এছাড়া জীবিত উদ্ধার হওয়া তুহিন কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর উপজেলার মোহাম্মদ আলীর ছেলে এবং হাসিবের বাড়ি বরিশালের পটুয়াখালী জেলায়।

স্থানীয়রা জানান, ওই তিন যুবক মিলে নিকলীতে ঘুরতে আসেন। এরপর তারা কুর্শা এলাকার হাওরে গোসল করতে নামেন। গোসলের এক পর্যায়ে তিনজনই পানিতে তলিয়ে যান। এসময় স্থানীয় লোকজন ও নিকলী ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা একজনকে মৃত এবং দুজনকে জীবিত অবস্থায় উদ্ধার করেন। জীবিত উদ্ধার হওয়া দুজনের অবস্থাও সংকটাপন্ন।

কিশোরগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মো. আবুজর গিফারী ঘটনা সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, শুক্রবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে হাওরে গোসল করতে নেমে তিন পর্যটক নিখোঁজ হন। এ বিষয়ে নিকলী থেকে ফোন আসে।

তিনি আরও জানান, কিশোরগঞ্জ স্টেশন থেকে ডুবুরিদল ঘটনাস্থলে উদ্দেশে রওনা হলে পথে জানতে পারে নিকলী ফায়ার সার্ভিস ও স্থানীয় এলাকাবাসী একজনকে মৃত এবং দুজনকে জীবিত অবস্থায় উদ্ধার করেছে। পরে ডুবুরিদল স্টেশনে ফিরে আসে।

জীবিত উদ্ধার হওয়া দুজন নিকলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চিকিৎসাধীন রয়েছে বলে জানান ফায়ার সার্ভিসের এই কর্মকর্তা।