বাইসাইকেল চুরি করে পালানোর সময় জনতার হাতে আটক হন নয়ন সরকার। জনতার গণধোলাই থেকে বাঁচতে কৌশলে ৯৯৯-এ ফোন দেন। মুহূর্তের মধ্যে পুলিশ এসে তাঁকে হেফাজতে নেয়। বৃহস্পতিবার ভোরে জীবননগর উপজেলার দেহাটি পিয়াস ফিলিং স্টেশনের সামনে থেকে তাঁকে আটক করে জনতা। আটক নয়ন সরকার ঝিনাইদহ জেলার কোটচাঁদপুর উপজেলার আদর্শপাড়ার বাসিন্দা।

চুয়াডাঙ্গার দর্শনা শ্যামপুর গ্রাম থেকে বাইসাইকেল চুরি করে পালিয়ে যাচ্ছিলেন নয়ন সরকার। ভোরে দেহাটি পিয়াস ফিলিং স্টেশনের সামনে পৌঁছলে চোর সন্দেহে তাঁকে আটক করে স্থানীয় জনতা। এ সময় জনরোষ থেকে বাঁচতে ৯৯৯-এ ফোন দেন। ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাঁকে পুলিশ হেফাজতে নেয়।
এ সময় তিনি জানান, লোকজন তাঁর কাছে থাকা বাইসাইকেল কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করছে। পড়ে জিজ্ঞাসাবাদে সাইকেল চুরির বিষয়টি স্বীকার করেন তিনি। জীবননগর থানার পরিদর্শক (ওসি) আব্দুল খালেক জানান, নয়ন সরকারের বিরুদ্ধে কোটচাঁদপুর থানায় ৪টি মামলার গ্রেপ্তারি পরোয়ানা রয়েছে।