উজিরপুর প্রতিনিধিঃ বরিশালের উজিরপুর উপজেলার বামরাইল ইউনিয়নের ভরসাকাঠি গ্রামে এক স্কুলছাত্রের গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার অভিযোগ পাওয়াগেছে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের মার্গে পাঠানো হয়েছ। স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, স্কুলছাত্র সিয়াম ফকির শান্ত(১৪) বামরাইল এবি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর ছাত্র। সোমবার দুপুরে মায়ের স্মার্ট মোবাইল নিয়ে গেমস খেলে। এসময় তার মা মোবাইল ধরায় ওই স্কুল ছাত্রকে বকা-ঝকা করে।
মায়ের সাথে অভিমান করে বাড়ি থেকে উধাও হয়ে যায়। বিকাল থেকে আত্মীয়স্বজনের বাড়ীসহ চারিদিকে খোঁজাখুঁজি করে সোমবার রাত ৯টায় দিকে তাদের বাড়ির পার্শ্ববর্তী একটি জঙ্গলে শান্তর গলায় রশি বাধা অবস্থা ঝুলন্ত লাশ দেখতে পায় স্থানীয়রা। উজিরপুর থানার এস আই জসিম উদ্দিন তার সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে রাত ১১ টায় এসে লাশ উদ্ধার করে। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরন করে।

স্কুল ছাত্রের মা জেসমিন বেগম জানান, ওর বাবা প্রবাসে থাকে। আমার কাছে একটি স্মার্ট মোবাইল কেনার বায়না ধরে। আমি তাকে এসএসসি পরীক্ষায় পাস করলে ভালো মোবাইল কিনে দেওয়ার কথা বলি। আমার উপর রাগ করে এমন কাজ করবে বুঝতে পারিনি।

উজিরপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ আলী আর্শাদ জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে পাঠিয়েছি। এ ঘটনা একটি অপমৃত্যু মামলা রুজু করা হয়েছে।