ঢাকা: ভারতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ব্যাপকভাবে বেড়ে যাওয়ায় দেশটি থেকে বাংলাদেশে প্রবেশের ক্ষেত্রে কঠোর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে বাংলাদেশ সরকার। তবে যাদের ভিসার মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে, তারা ছাড়াপত্র নিয়ে দেশে আসতে পারবেন।

চলমান বিধিনিষেধের মেয়াদ আগামী ৫ মে পর্যন্ত বৃদ্ধি করে বুধবার (২৮ এপ্রিল) জারি করা প্রজ্ঞাপনে এমন নির্দেশনা দেওয়া হয়।

এতে বলা হয়, স্থল, নৌ ও বিমানযোগে যে কোনো ব্যক্তি ভারত থেকে বাংলাদেশে প্রবেশের (পণ্য পরিবহন ব্যতীত) ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। তবে শুধুমাত্র ভিসার মেয়াদ উত্তীর্ণ বাংলাদেশিরা ভারতে অবস্থিত বাংলাদেশ হাইকমিশনের অনুমতি/অনাপত্তি ছাড়পত্র নিয়ে বিশেষ বিবেচনায় বাংলাদেশে প্রবেশ করতে পারবেন।

তবে ভারতে থেকে বাংলাদেশে প্রবেশকারীদের ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন সংক্রান্ত বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর প্রণীত বিধিনিষেধ কঠোরভাবে অনুসরণের জনা স্বাস্থ্য সেবা বিভাগ, জননিরাপত্তা বিভাগ, সুরক্ষা সেবা বিভাগ, নৌ-পরিবহন মন্ধণালয় ও সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসকদের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে।

ভারতে করোনা প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় গত ২৫ এপ্রিল আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠকে ভারতের সঙ্গে সব স্থলসীমান্ত বন্ধ ঘোষণা করে সরকার। বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ২৬ এপ্রিল সকাল ৬টা থেকে ৯ মে বিকেল ৬টা পর্যন্ত স্থলবন্দর দিয়ে বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে সাধারণ মানুষের চলাচল সাময়িকভাবে বন্ধ থাকবে বলে জানায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়