উজিরপুর (বরিশাল) প্রতিনিধিঃ
হাজার কোটি টাকার ঋন খেলাপীদের গ্রেপ্তার দুরে থাক,তাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়না অথচ মাত্র পঁচিশ হাজার টাকা ঋন ফেরত না দেয়ায় পাবনার ১২ জন কৃষককে জেলে পাঠানো হয়ে ছিলো । ২৮ নভেম্বর সোমবার বিকাল ৪টায় বরিশালের উজিরপুরে বি,এন,খান ডিগ্রি কলেজ মাঠে উজিরপুর উপজেলা ওয়ার্কার্স পার্টি আয়োজিত কর্মীসভায় বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি কমরেড রাশেদ খান মেনন একথা বলেন।
তিনি আরো বলেন, বর্তমান সংকট মোকাবিলায় আমলা নয়। জনগণের উপর নির্ভর করতে হবে।
উপজেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি কমরেড ফায়জুল হক বালী ফারাহীন এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত কর্মিসভায় বক্তব্য রাখেন বরিশাল জেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি কমরেড নজরুল হক নীলু, সাধারণ সম্পাদক কমরেড শেখ মোঃ টিপু সুলতান, জেলা কমিটির সদস্য কমরেড টি,এম শাজাহান, মোজাম্মেল হক ফিরোজ, জহুরুল ইসলাম টুটুল, এইচ এম হারুন, উপজেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক কমরেড সীমা রানী শীল, উপজেলা যুব মৈত্রী সভাপতি জাহিদ হোসেন খান ফারুক প্রমুখ। সভা পরিচালনা করেন কমরেড রফিকুল ইসলাম।



ঢাকা: দেশের আকাশ আংশিক মেঘলা থাকলেও দিন-রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকবে।

সোমবার (১৪ নভেম্বর) রাতে এমন পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অফিস।

আবহাওয়াবিদ মো. ওমর ফারুক জানিয়েছেন, লঘুচাপের বর্ধিতাংশ উত্তরপূর্ব বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ বিহার এবং তৎসংলগ্ন এলাকা পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে।

এ অবস্থায় মঙ্গলবার (১৫ নভেম্বর) সন্ধ্যা পর্যন্ত অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকবে। ভোরের দিকে দেশের কোথাও কোথাও হালকা কুয়াশা পড়তে পারে।


এছাড়া সারা দেশে রাত ও দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। ঢাকায় উত্তর/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় বাতাসের গতিবেগ থাকবে ০৮-১২ কিলোমিটার।

আগামী দুই দিনে দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে। আর বর্ধিত পাঁচদিনে আবহাওয়ার সামান্য পরিবর্তন হবে।

সোমবার দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে চুয়াডাঙ্গায় ১৩ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে সৈয়দপুরে ৩২ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঢাকায় সর্বনিম্ন ও সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে যথাক্রমে ১৯ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস ও ৩০ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস।



হজযাত্রীদের ইমিগ্রেশন বাংলাদেশের বিমানবন্দরে করা নিয়ে সৌদি আরবের সঙ্গে চুক্তির খসড়া অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। একই সঙ্গে সৌদি আরবের সঙ্গে নিরাপত্তা সহযোগিতা চুক্তির খসড়াও অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

সোমবার (১৪ নভেম্বর) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে তার কার্যালয়ে মন্ত্রিসভা বৈঠকে এ দুটি চুক্তির খসড়া অনুমোদন দেওয়া হয়। বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সভাপতিত্ব করেন।

বৈঠক শেষে সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।
প্রসঙ্গত, রোববার বাংলাদেশ সফরে আসা সৌদি স্বরাষ্ট্র উপমন্ত্রী নাসের বিন আব্দুল আজিজ আল দাউদের নেতৃত্ব বাংলাদেশে আসা প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠকে এ চুক্তি হয়।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, গত বছর হজযাত্রীদের ইমিগ্রেশনটা এখানে হয়েছে। এবার চুক্তি হয়েছে এখন থেকে আমাদের হজযাত্রীদের ইমিগ্রেশন আমাদের এখানেই হবে। এটা একটা বড় অর্জন। ২০১১ সালে যখন আমরা হজ করতে গেলাম অনেক কাঠখড় পোড়াতে হয়েছে। এখন হজযাত্রীদের ইমিগ্রেশনের বিষয়টি বাংলাদেশে হওয়ার বিষয়টি স্থায়ীভাবে হলো।

সৌদি আরবের সঙ্গে নিরাপত্তা সহযোগিতা সংক্রান্ত আরও একটি চুক্তি হয়েছে উল্লেখ করে খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, এটার প্রধান বিষয় হলো সন্ত্রাসবাদ, মানবপাচার ও অর্থপাচার রোধ করা। মাদকদ্রব্য ও সন্ত্রাসে অর্থায়ন বন্ধ করা, সৌদি আরবে দক্ষ জনবল প্রেরণ ও ভিসা সহজ করা, নিরাপত্তা সংক্রান্ত প্রশিক্ষণ ও সক্ষমতা বাড়ানো।

তিনি বলেন, এ চারটি বিষয়ে সৌদি আরবের স্বরাষ্ট্র উপমন্ত্রীর সঙ্গে জননিরপত্তা বিভাগের চুক্তি হয়েছে। এখন সেগুলো মন্ত্রিসভা অনুমোদন করেছে। এর সঙ্গে আর্থিক কিছু বিষয় আছে, সে বিষয়ে ওনারা অর্থমন্ত্রণালয় থেকে একটা পর্যবেক্ষণ নেবেন।


ঢাকা: করোনা মহামারির পর ইউক্রেন-রাশিয়ার চলমান যুদ্ধে অর্থনৈতিক সংকটেও আগের অর্থ বছরের তুলনায় ২০২১-২২ অর্থ বছরে বাংলাদেশে মাথাপিছু আয় বেড়েছে ২৩৩ ডলার। গত অর্থ বছরে মাথাপিছু আয় হয়েছে ২ হাজার ৮২৪ ডলার (বর্তমান বিনিময় হার অনুযায়ী বাংলাদেশি মুদ্রায় ২ লাখ ৮৭ হাজার ৬২৭ টাকা ৫১ পয়সা)।

২০২০-২১ অর্থ বছরে বাংলাদেশের মাথাপিছু আয় ছিল ২ হাজার ৫৯১ ডলার। সে হিসাবে বিগত অর্থ বছরে মাথাপিছু আয় বেড়েছে ২৩৩ ডলার।

সোমবার (১৪ নভেম্বর) প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠকে উপস্থাপন করা মন্ত্রণালয় ও বিভাগগুলোর ২০২১-২২ অর্থছরের কার্যাবলি সংক্রান্ত বার্ষিক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

বৈঠক শেষে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ে বিস্তারিত জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।
তিনি জানান, ২০২১-২২ অর্থ বছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধির হার ৭ দশমিক ২৫ শতাংশ (সাময়িক), বাংলাদেশে মাথাপিছু আয় ২ হাজার ৮২৪ মার্কিন ডলার নিরূপিত হয়েছে।
এ সময়ে রাজস্ব আদায়ের পরিমাণ ৩ লাখ ৪২ হাজার ৪০০ কোটি টাকা, রাজস্ব আদায় বৃদ্ধির হার ৪ দশমিক ১৮ শতাংশ। বাংলাদেশের রপ্তানির পরিমাণ ৩৪ দশমিক ৩৮ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়ে দাঁড়িয়েছে ৫২ দশমিক ০৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

২০২১-২২ অর্থ বছরে সরাসরি বৈদেশিক বিনিয়োগের পরিমাণ ৩ দশমিক ৪৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রেরিত রেমিট্যান্সের পরিমাণ ২১ দশমিক ০৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। এ সময়ে ৯ লাখ ৮৪ হাজার ৭৫৯ জন বাংলাদেশি কর্মী বৈদেশিক কর্মসংস্থান লাভ করেন।

বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিতে ১ হাজার ৮৩৬টি প্রকল্পে ব্যয় হয় ২ লাখ ৩ হাজার ৭৮৩ কোটি টাকা, যা বরাদ্দের ৯২ দশমিক ৮০ শতাংশ। এই অর্থ বছরে ৩৩৩টি প্রকল্প সমাপ্ত হয়।

২০২১-২২ অর্থ বছর শেষে ১৬ দশমিক ০৭ লাখ মেট্রিক টন খাদ্যশস্য মজুদ ছিল, যা বিগত অর্থ বছরের তুলনায় ১০ দশমিক ৯৮ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। এই অর্থ বছরে সার, সেচ কাজে বিদ্যুৎ, ইক্ষু ইত্যাদি খাতে মোট ১৫ হাজার ১৭২ দশমিক ৭৯ কোটি টাকা ভর্তুকি দেওয়া হয়েছে।


সুনামগঞ্জ: সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষের সময় চেয়ারকে ঢাল বানিয়ে আত্মরক্ষার চেষ্টা করছেন প্রেসিডিয়াম সদস্য নুরুল ইসলাম নাহিদসহ কেন্দ্রীয় নেতারা।
সোমবার (১৪ নভেম্বর) দুপুরে দিরাই উপজেলা বিএডিসি মাঠে কেন্দ্রীয় নেতাকর্মীরা মঞ্চে ওঠার পরপরই এ সংঘর্ষ শুরু হয়।
এ সময় মঞ্চে থাকা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতাদের দিকে ইটপাটকেল ছুড়তে থাকেন আওয়ামী লীগের আরেক অংশের নেতাকর্মীরা।
উপজেলা আওয়ামী লীগ সূত্রে জানা যায়, সম্মেলন শুরুর পরপরই বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে মঞ্চের সামনে আসেন পৌরসভার সাবেক মেয়র মোশারফ মিয়া।

এর পরপরই কেন্দ্রীয় নেতাদের দিকে ইটপাটকেল ছুড়তে করতে থাকেন তার সমর্থকরা। তিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের বহিষ্কৃত নেতা।

এ সময় কেন্দ্রীয় নেতারা বসার চেয়ার মাথায় নিয়ে আত্মরক্ষা করেন। পরে পুলিশ এসে তাদের নিরাপদে মঞ্চ থেকে নামিয়ে নিয়ে যায়।
উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে সুনামগঞ্জের দিরাই বিএডিসি মাঠে হামলার সময় চেয়ার মাথায় নিয়ে আত্মরক্ষার চেষ্টা করছেন কেন্দ্রীয় নেতারা।

মঞ্চে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য নুরুল ইসলাম নাহিদ, বিশেষ অতিথি কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, নির্বাহী কমিটির সদস্য আজিজুস সামাদ আজাদ ডন প্রমুখ।

সুনামগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবু সাইদ বলেন, সম্মেলন শুরুর পরপরই কিছু ইটপাটকেল ছোড়ার ঘটনা ঘটেছে। তবে এখন পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে।


ঢাকা: স্বাস্থ্য ও পরিবেশ ঝুঁকি বিবেচনায় মোবাইল টাওয়ারের রেডিয়েশনের আন্তর্জাতিক মাত্রা ১০ শতাংশের এক শতাংশ নির্ধারণ করা যৌক্তিক কিনা, সে বিষয়ে মতামত জানতে বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করে দিয়েছেন হাইকোর্ট।

চার মাসের মধ্যে এ কমিটির মতামত চেয়েছেন উচ্চ আদালত।

মানবাধিকার ও পরিবেশবাদী সংগঠন হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের (এইচআরপিবি) আবেদনে সোমবার (১৪ নভেম্বর) এ আদেশ দেন বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের হাইকোর্ট বেঞ্চ।

সাত সদস্যের কমিটির আহ্বায়ক করা হয়েছে বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশনের সাবেক সদস্য মো. কামরুজ্জামানকে।

সদস্য সচিব করা হয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের (বিটিআরসি) পরিচালক মো. গোলাম রাজ্জাককে।

আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মনজিল মোরসেদ।

রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল তুষার কান্তি রায়।
পরে আইনজীবী মনজিল মোরসেদ জানান, যেসব দেশের ভিত্তিতে বিকিরণমাত্রা প্রতি বর্গ কিলোমিটারে ৪ দশমিক ৫ ওয়াট করা হয়েছে সেসব দেশ শীত প্রধান। সেখানে জনবসতি কম। কিন্তু বাংলাদেশ উষ্ণ ও ঘনবসতিপূর্ণ।

ভারতে একটি রায়ের পর আন্তর্জাতিক মাত্রা নির্ধারণের পর নিজের দেশের প্রেক্ষাপটে মাত্রা দশমিক ৪৫ মাত্রা অর্থাৎ আন্তর্জাতিক মাত্রার ১০ শতাংশের এক শতাংশ করেছে। কিন্তু আমাদের দেশে তা করা হয়নি।

মোবাইল টাওয়ার বিকিরণের ক্ষতিকর প্রভাব নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রতিবেদন হলে সেসব প্রতিবেদন যুক্ত করে মোবাইল ফোন টাওয়ারের রেডিয়েশন নিঃসরণ নিয়ে ২০১২ সালে হাইকোর্টে রিট করে পরিবেশবাদী সংগঠন হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশ। এ রিট আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্টের নির্দেশের পর স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এ সংক্রান্ত একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করে।

ওই বিশেষজ্ঞ কমিটি ঢাকার মতিঝিল, গুলশান ও মিরপুর এলাকায় ছয়টি মোবাইল কোম্পানির ১৮টি টাওয়ারের বিকিরণ পরিদর্শন ও পর্যবেক্ষণ করে ২০১৩ সালে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কাছে তিন দফা সুপারিশ করে প্রতিবেদন দেয়। প্রতিবেদনে বলা হয়, এসব টাওয়ারের মধ্যে মাত্র একটি টাওয়ারে মাত্রাতিরিক্ত রেডিয়েশন পাওয়া গেছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে আদালতের দেওয়া নির্দেশনার আলোকে বিটিআরসি নীতিমালা করে। পরবর্তীতে আদালতের দেওয়া আদেশে কয়েক দফা এ নীতিমালা সংশোধন করে বিটিআরসি। এ প্রেক্ষাপটে মামলাটি চলমান রেখে ২০১৯ সালের ২৫ এপ্রিল রায় দেন উচ্চ আদালত। রায়ে ১১ দফা নির্দেশনা দিয়ে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের আগে বিকিরণের সম্ভাব্যতা যাচাই করতে বলেন আদালত।

বিটিআরসি সম্ভাব্যতা যাচাই না করে নীতিমালা চূড়ান্ত করে তা আদালতে দেয়। বিটিআরসির চূড়ান্ত নীতিমালায় বিকিরণের মাত্রা আগের মতো রাখা হয়। পরে এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞ মত নিতে গত ১৬ অক্টোবর হাইকোর্টে আবেদন করা হয়।


ঝিনাইদহ: তত্ত্বাবধায়ক সরকার এখন মিউজিয়ামে। হাওয়া ভবনের ময়ূর সিংহাসন ফিরে পেতেই বিএনপি আন্দোলন করছে বলে মন্তব্য করেছে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বিএনপি দেশকে মিনি পাকিস্তান বানাতে চায় অভিযোগ করে এবং রাজপথে দেখার ঘোষণা দিয়ে তিনি বলেন খেলা হবে। সেই সঙ্গে তত্ত্বাধায়ক সরকারের দাবি মামা বাড়ি আবদার মন্তব্য করে বিএনপিকে তা ভুলে যেতে বলেন।

রোববার (১৩ নভেম্বর) দুপুরে ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

সম্মেলন উপলক্ষে এদিন সকাল থেকেই জেলার বিভিন্ন উপজেলা থেকে খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে শহরের পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) মাঠে হাজির হন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা।


বেলা ১১টার দিকে জাতীয় সংগীত পরিবেশন এবং জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে সমাবেশের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন দলের দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ। পরে অনুষ্ঠিত হয় সমাবেশ।
ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সংসদ সদস্য আব্দুল হাইয়ের সভাপতিত্বে সম্মেলনে কেন্দ্রীয় যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বি এম মোজাম্মেল হক, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আমিরুল আলম মিলন, পারভিন জামান কল্পনা, গ্লোরিয়া সরকার ঝর্না, স্থানীয় সংসদ সদস্য শফিকুল আজম খাঁন চঞ্চল, আনোয়ারুল আজীম আনার, তাহজিব আলম সিদ্দিকি প্রমুখ।

সমাবেশ পরিচালনা করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টু।

সম্মেলনের প্রধান অতিথি সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের দ্বিতীয় পর্বের শুরুতে জেলা কমিটি বিলুপ্তি ঘোষণা করেন। পরে তিনি বর্তমান সভাপতি আব্দুল হাই এমপিকে সভাপতি ও সাইদুল করিম মিন্টুর নাম পুনরায় সাধারণ সম্পাদক হিসেবে ঘোষণা করেন।

উল্লেখ্য, দীর্ঘ সাত বছর পর রোববার ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হলো। এর আগে সর্বশেষ ২০১৫ সালের ২৫ মার্চ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল।

রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার তরুণ শ্যাম সুন্দর রায় ভালোবেসে বিয়ে করেন হেমা শর্মাকে। কিন্তু বিয়েতে মত না থাকায় হেমাকে বিয়ের রাতেই নিয়ে চলে যায় পরিবার।

দীর্ঘদিন স্ত্রীকে না পেয়ে উচ্চ আদালতের দ্বারস্থ হন তিনি। রোববার (১৩ নভেম্বর) তার করা রিটের রায় দিয়েছেন আদালত।
এ রায়ের মাধ্যমে দীর্ঘ ১০ মাস পর স্ত্রীকে ফিরে পেলেন শ্যাম সুন্দর। আদালতে শ্যাম সুন্দরের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম।

তিনি জানান, হেমা ও শ্যামের দাম্পত্য জীবন ফিরে পাওয়ার লড়াইটা ছিল ব্যতিক্রম। চলতি বছর ১৩ জানুয়ারি তারা ভালোবাসার সম্পর্ককে বিয়েতে রূপ দেন। শ্যামের পরিবার এ বিয়েতে সম্মত থাকলেও পিতৃহীন হেমার মা-মামারা মেনে নেননি। তাই বিয়ের রাতেই হেমাকে পুলিশের সহায়তায় তুলে নিয়ে গিয়ে মামা গণেশের বাড়িতে আটকে রেখে নির্যাতন চালায় তার পরিবার।
এক পর্যায়ে ইচ্ছার বিরুদ্ধে ঢাকায় এনে আইন ও সালিশ কেন্দ্রের হেফাজতে ৫ মাস রেখে দেওয়া হয় হেমাকে। তারপর তাকে দিয়ে শ্যামের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা করানো হয়। শ্যাম উপায় না পেয়ে স্ত্রীকে ফিরে পেতে হাইকোর্টে রিট দায়ের করেন।

বিচারপতি মো.মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি কাজী মো. ইজারুল হক আকন্দের হাইকোর্ট বেঞ্চ গত ৩১ অক্টোবর এক আদেশে রোববার (১৩ নভেম্বর) হেমাকে হাজির করার নির্দেশ দেন। হাইকোর্টের আদেশে পুলিশি প্রহরায় হেমাকে আদালতে উপস্থিত করা হয়। পরে তিনি আদালতের কাছে শ্যামের সঙ্গে বিয়ে, মা-মামাদের অত্যাচার ও জোর করে আটক করে রাখার বিষয়ে জানান। তাকে দিয়ে মিথ্যা মামলা করানো হয় বলেও উল্লেখ করেন। এ সময় তিনি স্বামীর কাছে ফেরার ইচ্ছাও প্রকাশ করেন।

আইনজীবী তাজুল ইসলাম আরও জানান, আদালত পরে হেমার মা, মামা, শ্যাম ও শ্যামের পিতার বক্তব্যও সরাসরি জানতে চান। সবকিছু শুনে বিচার কক্ষ থেকেই হেমাকে তার স্বামী শ্যামের কাছে তুলে দিতে নির্দেশ দেন বিচারকগণ।



বরিশালের উজিরপুরে বৃদ্ধ বাবা-মাকে ১শত জুতাপিটা করার অভিযোগে দুই ছেলে অমল মন্ডল ও শ্যামল মন্ডলকে গ্রেফতার করেছে উজিরপুর মডেল থানা পুলিশ। রবিবার রাতে উপজেলার হারতা ইউনিয়নের ০২নং ওয়ার্ডের কালবিলা গ্রাম থেকে পুলিশের একটি চৌকস টিম অভিযান চালিয়ে দুই ছেলেকে গ্রেফতার করে থানা নিয়ে আসে। সোমবার সকালে আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে উজিরপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মাদ কামরুল হাসান। ওসি মোহাম্মাদ কামরুল হাসান বলেন, সন্তানের পিটুনিতে আহত মা স্বরস্বতী মন্ডল থানায় তিন ছেলে অমল মন্ডল, বিবেক মন্ডল, শ্যামল মন্ডল ও পুত্রবধু মুক্তা মন্ডলকে আসামী করে রবিবার রাতে একটি মামলা দায়ের করে। ওই মামলা দুই ছেলে অমল মন্ডল ও শ্যামল মন্ডলকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে। বাকী আসামীদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। উল্লেখ্য, গত শনিবার পারিবারিক একটি অনৈতিক ঘটনার প্রতিবাদ করায় ছেলেরা ও পুত্রবধু মিলে টেনে হিচরে বাড়ি থেকে বেড় করে দিয়ে ১শ জুতাপিটা করেছে। এ নিয়ে জাতীয় পত্রিকাসহ বিভিন্ন পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের পর দুই ছেলে অমল মন্ডল, শ্যামল মন্ড কে গ্রেফতার করে পুলিশ। দুই ছেলেকে গ্রেফতার করায় কিছুটা স্বস্তির নি:শ্বাস দিয়ে পুলিশ ও সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানান আহতর মা স্বরস্বতী মন্ডল।


ঢাকা: বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি রোববার থেকে রাজধানীর মিরপুর অঞ্চলের ৩০ কোম্পানির সব বাস ই-টিকিটিংয়ের অধীনে চলাচল করবে বলে ঘোষণা দিয়েছিল। ২৩টি কোম্পানির বাস ই-টিকিটিংয়ের আওতায় এলেও বাকিগুলো আসেনি।

কয়েকটি বাস কোম্পানির বিরুদ্ধে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের অভিযোগও পাওয়া গেছে।
রোববার (১৩ নভেম্বর) রাজধানীর মিরপুর অঞ্চলের গাড়ির রুটগুলোতে সরেজমিনে ঘুরে এ চিত্র দেখা গেছে।

মিরপুর থেকে গাবতলি রুটে চলাচলকারী আলিফ পরিবহনের সুপারভাইজার রাজু আহমেদ বলেন, কাল থেকে আমাদের বাসে চালু হওয়ার কথা মেশিনের মাধ্যমে ভাড়া কাটা। আমরা তো শিখিনি, এটা শেখাতে হবে আমাদের।

না হলে বুঝবো কীভাবে! মিরপুর থেকে গাবতলী রুটে আলিফ পরিবহনের সাথে চলে শতাব্দী পরিবহন। এ বাসটিতেও চালু হয়নি ই-টিকিটিং।

এ রুটে চলাচলকারী যাত্রী শাহিন হোসেন বলেন, চেকার দেখিয়ে অনেক ভাড়া নেয়। ই-টিকেটিং চালুর কথা থাকলেও চালু হয়নি।

মিরপুর থেকে রামপুরা যাতায়াতকারী তিন বাস নূর-ই-মক্কা, রাজধানী ও আছিম পরিবহন ই-টিকিটিংয়ে আসার পরে বাসের সংখ্যা কমিয়ে দেয়। ফলে ভোগান্তিতে পড়তে হয় বাস কোম্পানিগুলোকে। এ রুটে বাসের সংখ্যাও স্বাভাবিক হয়নি।

এ রুটে চলাচলকারী সাগর হোসেন বলেন, যথেষ্ট বাস নেই। রাস্তায় হুড়োহুড়ি করে বাসে উঠতে হয়।

এছাড়া মিরপুর থেকে যাতায়াতকারী বিকল্প অটো সার্ভিসের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে একদিনের ব্যবধানেই ভাড়া বাড়িয়ে ফেলার। যাত্রী সাইদ হোসেন বলেন, গতকাল মিরপুর-১২ নম্বর থেকে ফার্মগেট গিয়েছিলাম ২০ টাকা ভাড়ায়, আজকে সেই ভাড়া নিয়েছে ২৩ টাকা।

এসব অভিযোগের বিষয়ে ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির কোষাধ্যক্ষ ভূইয়া হুমায়ুন কবির তপন বলেন, চার্টে আগে ২২ টাকা ভাড়া ছিল, ২০ টাকা নিতো। কিন্তু ই-টিকিটিংয়ে কম নেওয়ার সুযোগ নেই।

অনেক বাস ই-টিকিটিংয়ের আওতায় আসেনি, কেন জানতে চাইলে হুমায়ুন কবির তপন বলেন, প্রথম দিন সবগুলো না চললেও আগামীকাল থেকে সব বাসই চলবে ই-টিকিটিংয়ে।

এর আগে, গণপরিবহনে ই-টিকিটিং পদ্ধতি চালুর বিষয়ে ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির মহাসচিব এনায়েত উল্যাহ বলেন, ৩১ জানুয়ারির মধ্যে ঢাকার সব গাড়িতে ই-টিকিটিং চালু করা হবে। ঢাকার ও চট্টগ্রামের শহরতলীসহ মোট ৯৭টি কোম্পানির গাড়ি ২৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে ই-টিকিটিংয়ের আওতায় আসবে।

ই-টিকিটিংয়ের আওতায় সবাইকেই আসতে হবে মন্তব্য করে পরিবহন মালিকদের এই নেতা বলেন, ই-টিকিটিংয়ে অসম প্রতিযোগিতা থাকবে না। চুক্তিভিত্তিক গাড়ি চলাচল বন্ধ হবে। পরিবহন শ্রমিকরা বেতন সিস্টেমের আওতায় চলে আসবে। যত্রতত্র গাড়ি থামানো এবং প্রতিযোগিতা বন্ধে সেন্ট্রাল মনিটরিং সেল গঠন করা হবে।

প্রসঙ্গত, বাস রুট র‌্যাশনালাইজেশন কমিটির উদ্যোগে পরীক্ষামূলকভাবে ঢাকা নগর পরিবহনের বাসগুলোতে সর্বপ্রথম ই-টিকিটিং ব্যবস্থা চালু করা হয়। এই পরিবহনের বাসে ই-টিকিট নিয়ে যাত্রীরা সরকারের নির্ধারিত ভাড়ায় যাতায়াত করছে।